অথ জীবন
সোনালী চক্রবর্তী


পোষা কাছিমটির পিঠ জুড়ে রঙিন ঘুড়িদের আঁকলে দিন ভোর, আদর করে সুতো দের পাখি নামে ডাকতে ডাকতে ফুরিয়ে দিলে রাত অথচ আচারি সুবাস ছড়ানো ঘুম ঠাসা আদিম বয়ামের ভিতর কোন ফানুসও তোমায় ভাসিয়ে তুললো না।

এই সনাতনী ব্যর্থতায় বাকি ভাণ্ড টুকু সামান্যও বিচলিত নয় টের পেলে যখন কাচ আর রক্তের তামাশায় আহাজারি কিছু কুড়োবে ভাবছিলে।

বৃক্ষের আয়ু ফুরনো পাতাটি শুধু জানলো নুনের পুতুলেরা কেন ফেরে না কখনো সমুদ্র মাপতে গেলে।

3 Comments

  • Subhankar Guha

    Reply November 3, 2020 |

    শেষের তিন লাইন… আহা চমৎকার.. চমৎকার।
    ভাবনার দুয়ার ভেঙ্গে দেওয়া বিন্যাস।

  • Debasish Chanda

    Reply November 4, 2020 |

    শুরু থেকে শেষ-প্রতিটি লাইনে মেধার ভেতরে বিদ্যুৎ চমক। এক পরাবাস্তব পরিসরে ভ্রমণ। কবিকে কুর্নিশ।

  • chayan

    Reply November 5, 2020 |

    বেশ মন জুড়ে থাকা লেখা

Write a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

loading...